× প্রচ্ছদ জাতীয় সারাদেশ রাজনীতি বিশ্ব খেলা আজকের বিশেষ বাণিজ্য বিনোদন ভিডিও সকল বিভাগ
ছবি ভিডিও লাইভ লেখক আর্কাইভ

ত্রিশালের অরক্ষিত রেলক্রসিং যেন মরণফাঁদ

ত্রিশাল (ময়মনসিংহ) প্রতিনিধি

২৪ জুন ২০২২, ১৬:০৭ পিএম

ময়মনসিংহের ত্রিশাল-নান্দাইল সড়ককে আউলিয়া নগরে অরক্ষিত রেলক্রসিংয়ে তিন বছর ধরে ব্যারিয়ার নষ্ট থাকার কারণে ঝুঁকি নিয়ে রাস্তা পারাপার করছে যানবাহনসহ সাধারণ মানুষ। এ যেন এক মরণফাঁদ।

সরেজমিনে দেখা যায়, ত্রিশাল-নান্দাইল সড়কের উপজেলার বালিপাড়া ইউনিয়নের আউলিয়া নগরে বেড়িয়ার নষ্ট থাকার কারণে ঝুঁকি নিয়ে পথচারীসহ হাজারো ছোট বড় যানবাহন চলাচল করছে। ময়মনসিংহ হয়ে ঢাকাগামী এ রেল পথে সারাদিন ট্রেন যাতায়াত করে। গেটম্যান লোহার চেইন দিয়ে যানবাহন নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা করছে। দিনের বেলা চেইন দিয়ে নিয়ন্ত্রণ করা গেলেও রাতের বেলা হয় সমস্যা। অনেকে লোহার চেইন না দেখে রেল ক্রসিং পারাপার হচ্ছে। এতে যেকোনো সময় ঘটতে পারে বড় ধরনের দুর্ঘটনা।

সিএনজিচালক রায়হান মিয়া বলেন, রেক্রসিংয়ে গেট আটকানোর জন্য ব্যারিয়ার অনেক দিন ধরে নষ্ট হয়ে পড়ে আছে। আমরা ঝুঁকি নিয়ে রাস্তা পারাপার করছি। লোহার চেইন দিয়ে আটকালেও অনেকেই তা মানছে না। এখানে ছোট খাটো দুর্ঘটনা সব সময় লেগেই আছে। গেটম্যান থাকলেও সে সব সময় থাকে না। এটা ঠিক না করলে যেকোনো সময় ঘটবে বড় ধরনের দুর্ঘটনা।

পথচারীরা বলেন, এ রেল ক্রসিং অনেক ঝুকিপূর্ণ। এর আগে অনেকেই এখানে বিপদে পড়েছে। লোহার চেইন দিয়ে পারাপারে নিয়ন্ত্রণ করলেও অনেকেই তা দেখে না। গেটম্যান অনেক সময় না থাকার কারণে দুর্ঘটনা ঘটে। রাতের বেলায় আরও বেশি সমস্যা হয় যানবাহনের লাইট না থাকার কারণে চেইন দেখা যায় না। গাড়ি না থেমে চেইন ছিড়ে নিয়ে চলে যায়। বড় একটা দুর্ঘটনা না ঘটার আগে কর্তৃপক্ষ নজরে আসবে না।

স্কুলশিক্ষার্থী সাফওয়ান সাদাত বলেন, আমাদের স্কুল রেলওয়ে স্টেশনের কাছাকাছি। তাই এ পথ দিয়েই প্রতিদিন যাতায়াত করি। অনেক দিন ধরে দেখছি রেলক্রসিংয়ের ব্যারিয়ার নষ্ট হয়ে পড়ে আছে। গেটম্যান লোহার চেইন দিয়ে রাস্তা আটকায়। চেইন অনেক সময় দেখা যায় না তাই প্রতিনিয়ত দুর্ঘটনা লেগেই আছে। আমাদেরও রাস্তা পারাপারে অনেক সমস্যা হয়। কখন যেন ট্রেন চলে আসে ভয়ে ভয়ে থাকি।

স্থানীয় কয়েকজন দোকানি বলেন, ত্রিশাল-নান্দাইল এ সড়কে ছোট বড় হাজারো গাড়ি চলাচল করে। সারা দিন-রাত্র অনেক ট্রেন চলাচল করে। আগে রাস্তা আটকানোর ব্যারিয়ার ভাল ছিল। তিন বছর ধরে নষ্ট হয়ে পড়ে আছে। রেল কর্তৃপক্ষ নজর না দিলে বড় ধরনের দুর্ঘটরার সমম্ভাবনা রয়েছে। আর গেটম্যান সব সময় থাকে না। লোহার চেইন দিয়ে আটকালেও অনেকেই না মেনে দ্রুত গতিতে চলে যায়। কয়েকদিন আগে এক মোটরসাইকেল আরোহী দ্রুত গতিতে পার হতে চাইলে চেইনে আটকে ব্যথা পায়। এমন ঘটনা নিয়মিতই ঘটে।

আউলিয়া নগর স্টেশনে যোগাযোগ করলে ওই সময় দায়িত্বরত রায়হান নিজেকে স্টেশন মাস্টার দাবি করে বলেন, এটা আমাদের রেলওয়ে ট্রাফিক বিভাগের আওতায়।আমি তাদেরকে অনেকবার এ বিষয়ে জানিয়েছি। তারা বলেছে, বাজেট নাই। অনেক দিন ধরে ব্যারিয়ার নষ্ট হয়ে পড়ে আছে। আর এখানে গেটম্যান আছে কিন্তু ট্রাফিক বক্স না থাকার কারণে অসুবিধা হচ্ছে। আমরা অনেকদিন নিজ উদ্যোগে বাশঁ দিয়ে নিয়ন্ত্রণ করেছি। এখন গেটম্যান লোহার শিকল দিয়ে রেল ক্রসিং নিয়ন্ত্রণ করছে।


Sangbad Sarabela

সম্পাদক: আবদুল মজিদ

প্রকাশক: কাজী আবু জাফর

যোগাযোগ: । 01894-944220 । sangbadsarabela26@gmail.com

ঠিকানা: বার্তা ও বাণিজ্যিক যোগাযোগ : বাড়ি নম্বর-২৩৪, খাইরুন্নেসা ম্যানশন, কাঁটাবন, নিউ এলিফ্যান্ট রোড, ঢাকা-১২০৫।

আমাদের সঙ্গে থাকুন

© 2022 Sangbad Sarabela All Rights Reserved.