× প্রচ্ছদ বাংলাদেশ বিশ্ব রাজনীতি খেলা বিনোদন বাণিজ্য লাইফ স্টাইল ভিডিও সকল বিভাগ
ছবি ভিডিও লাইভ লেখক আর্কাইভ

রংপুর-১

রাঙ্গার পথসভায় গরু-ছাগল জবাই করে ভুরিভোজ

রংপুর ব্যুরো

৩০ ডিসেম্বর ২০২৩, ১৭:৩১ পিএম

দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের প্রচারণায় রংপুর-১ (গঙ্গাচড়া ও আংশিক সিটি) আসনের স্বতন্ত্র প্রার্থী ও জাতীয় পাটির বহিষ্কৃত নেতা মসিউর রহমান রাঙ্গার বিরুদ্ধে আচরণবিধি ভঙ্গ করে ভোটারদের ভুরিভোজ করার অভিযোগ উঠেছে। 

শুক্রবার (২৯ ডিসেম্বর) উপজেলার কোলকোন্দ ইউনিয়নের দক্ষিণ কোলকোন্দ তাকিয়া শরীফ  আলিম মাদ্রাসা মাঠে জুম্মার নামাজের পর তার নির্বাচনী পথসভায় আসা প্রায় ৭ হাজার লোকজনের ৪ টা খাসি ও একটি গরু জবাই করে খাওয়ানো হয়।  এর আগেও আচারণ বিধি ভঙ্গের অভিযোগে রাঙ্গাকে কারণ দর্শানোর নোটিশ দেয়া হয়ছিল।

রাঙ্গার কয়েকজন কর্মী-সমর্থক নাম প্রকাশ না করার শর্তে  জানান, শুক্রবারের পথসভার জন্য দুই তিন দিন আগে থেকে খাওয়ার ঘোষণা দিয়ে পুরো ইউনিয়নটির ভোটারদের বাড়ি বাড়ি গিয়ে দাওয়াত দেয়া হয়েছিল। পথসভায় অংশ নেওয়া মুসলিম ভোটারদের জন্য ৮ মণ ওজনের একটি গরু ও হিন্দু ভোটারদের জন্য ৪টি ছাগল জবাই করা হয়। অন্তত ২০ জন স্থানীয় ভোটারদের দাওয়াত ও খাবার দেওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

পথসভায় আসা কোলকোন্দ হিন্দুপাড়া এলাকার আলো রাণী  বলেন, 'কাইলক্যা রাঙ্গা লোক হামার উত্তি বাড়ি বাড়ি ঢুকি দাওয়াত দিয়া গেইছে। আর কয়া গেইছে যে টাকা দিবে আর পোলাও ভাত খাওয়াইবে। কিন্তু মিটিং শ্যাষত পোলাও ভাত দিল কিন্তু টাকা তো দিল না৷ ভোট কাক দেই, দেই, রাঙ্গার মিটিংগোত আসি তো পোলাও খাওয়া হইল।'

পথসভায় আসা কোলকোন্দ মাটিয়ালপাড়া এলাকার মিজানুর রহমান জানান, রাঙ্গা সাহেব খুব ভালো মানুষ। হামাকগুলাক কালকে (বৃহস্পতিবার) রাঙ্গা স্যারের লোকজন বাড়িত যায়া খাবার দাওয়াত দিয়া আসছে। যায় আসছে তাকে খাবার দেয় চোল।

কথা হয় পিরের হাট এলাকার বক্কত উল্লার নামে এক ভোটারের সাথে তিনি জানান, সেই ৩ দিন থাকি বাড়ি বাড়ি যায়া দাওয়াত দিয়া আসছে বাহে   সবাকে নাকি বসে খাওয়াইবে তা এটে আসি খাবার নিয়া যে ঠ্যালাঠেলি।

এবিষয়ে সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তা নাহিদ তামান্নার সাথে কথা হলে তিনি  বলেন, আমরা বিষয়টি জেনেছি সব তথ্য সংগ্রহ করেছি, নির্বাচনী অনুসন্ধানী কমিটির কাছে দেয়া হয়েছে। এর আগে  তৃতীয় লিঙ্গকে নিয়ে মন্তব্য করায় আচরণ বিধি লঙ্ঘনের কারণে কারণ দর্শানোর নোটিশ প্রদান করা হয়েছিল।

প্রসঙ্গত, রংপুর-১ (গঙ্গাচড়া ও সিটি কর্পোরেশনের আংশিক) আসনটি জাতীয় পার্টির জন্য আওয়ামী লীগ ছেড়ে দেওয়ায় প্রার্থিতা প্রত্যাহার করে নিয়েছেন নৌকার প্রার্থী অ্যাডভোকেট রেজাউল করিম রাজু। তবে স্বতন্ত্র প্রার্থী হয়েছেন দলটির আরেক নেতা ও সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান আসাদুজ্জামান বাবলু (কেটলি প্রতীক)। অন্যদিকে জাতীয় পার্টির প্রার্থী ও সাবেক সংসদ সদস্য হোসেন মকবুল শাহরিয়ার আসিফের সঙ্গে ভোটযুদ্ধে নেমেছেন পার্টির বহিষ্কৃত সাবেক মহাসচিব মসিউর রহমান রাঙ্গা (ট্রাক)। এর ফলে আসনটিতে ত্রিমুখী লড়াইয়ে সম্ভাবনা দেখছেন সাধারণ ভোটাররা।

এই আসনে ভোটার ৩ লাখ ৩২ হাজার ২১৯ জন। বর্তমান সংসদ সদস্য ও সাবেক এলজিআরডি প্রতিমন্ত্রী মসিউর রহমান রাঙ্গা ২০০১ সালে নির্বাচিত হয়েছিলেন এ আসন থেকে। ২০১৪ সালের দশম সংসদ নির্বাচনে তিনি বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় জয়ী হন। সর্বশেষ ২০১৮ সালে অনুষ্ঠিত একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনেও তিনি নির্বাচিত হন। 

এ আসন থেকে ২০০৮ সালে এরশাদের ভাতিজা হোসেন মকবুল শাহরিয়ার আসিফ জাতীয় পার্টি থেকে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়েছিলেন। এখানে আওয়ামী লীগের মনোনয়নবঞ্চিত স্বতন্ত্র প্রার্থী আসাদুজ্জামান বাবলুসহ ৯ জন প্রার্থী নির্বাচনে লড়বেন। 

Sangbad Sarabela

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক ও প্রকাশক: কাজী আবু জাফর

যোগাযোগ: । 01894-944220 । [email protected], বিজ্ঞাপন: 01894-944204

ঠিকানা: বার্তা ও বাণিজ্যিক যোগাযোগ : বাড়ি নম্বর-২৩৪, খাইরুন্নেসা ম্যানশন, কাঁটাবন, নিউ এলিফ্যান্ট রোড, ঢাকা-১২০৫।

আমাদের সঙ্গে থাকুন

© 2024 Sangbad Sarabela All Rights Reserved.