× প্রচ্ছদ বাংলাদেশ বিশ্ব রাজনীতি খেলা বিনোদন বাণিজ্য লাইফ স্টাইল ভিডিও সকল বিভাগ
ছবি ভিডিও লাইভ লেখক আর্কাইভ

অতিরিক্ত ঠান্ডায় ইলিশসহ বিভিন্ন মাছ আহরণ কমেছে

বরিশাল ব্যুরো

০৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১৫:৩০ পিএম

গত কয়েকদিন বরিশাল নগরীর পোর্ট রোড মৎস্য অবতরণকেন্দ্র ঘুরে বিগত সময়ের চেয়ে ইলিশের সরবরাহ কম দেখা গেছে। তবে জাটকার ছড়াছড়ি ছিল। গতকাল শুক্রবার ৫০০ গ্রামের ইলিশ ১১০০, ৬০০-৯০০ গ্রামের ১৮৫০ এবং এক কেজির ইলিশ ২৫০০ টাকা দরে বিক্রি করতে দেখা গেছে।

বিগত মৌসুমগুলোর চেয়ে চলতি মৌসুমে অতিরিক্ত ঠান্ডা পড়ায় বরিশালের নদ-নদীতে ইলিশসহ বিভিন্ন প্রজাতির মাছ আহরণ কমেছে। ফলে যে মাছ আড়তে আসছে চড়া দামেই বিক্রি হচ্ছে।

বরিশাল মৎস্য অধিদপ্তরের হিসাব অনুযায়ী, গত বছরের তুলনায় চলতি বছরের জানুয়ারিতে প্রায় ৭০০ টন ইলিশ কম ধরা পড়েছে। আর বরিশাল আবহাওয়া অফিসের তথ্য অনুযায়ী পুরো জানুয়ারি মাসজুড়ে তাপমাত্রা ১৭ ডিগ্রির নিচেই ছিল।

পোর্ট রোড মৎস্য অবতরণকেন্দ্রের আড়তদার নাসির বলেন, ‘ইলিশ নাই বললেই চলে। গত মাসে আরও কম ছিল। ১৫ দিন ধরে ৪০-৫০ মণের বেশি ইলিশ মোকামে ওঠে না। সাধারণত তিনটিতে এক কেজি এমন ইলিশ বেশি।’

আড়তগুলোতে ইলিশের আহরণ কম থাকলেও নগরীর বাংলাবাজার, চৌমাথা বাজার, নতুল্লাবাদ বাজারসহ বেশ কয়েকটি বাজার ঘুরে দেখা গেছে জাটকায় সয়লাব।

নগরীর চৌমাথা বাজারের মাছ বিক্রেতা বেলাল জানান, নদী থেকে এসব জাটকা জেলেরা ধরে এনে তা আড়তে বিক্রি করছেন। আবার কেউ কেউ সরাসরি খুচরা বাজারে বিক্রি করছেন। কিন্তু নদীতে এই মাছ ধরা বা শিকার করা থেকে জেলেদের যদি বিরত রাখা যেত তাহলে এই ইলিশ সম্পদ ধ্বংস হতো না।

বরিশাল আবহাওয়া অফিসের উচ্চ পর্যবেক্ষক বশির আহমেদ সংবাদ সারাবেলাকে বলেন, গত ২৩ জানুয়ারি বরিশালে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল ৮.৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস। আর গোটা জানুয়ারি মাসে এবার তাপমাত্রা ১৭ ডিগ্রির নিচেই ছিল।

জেলা মৎস্য কর্মকর্তা (ইলিশ) ড. বিমল চন্দ্র দাস সংবাদ সারাবেলাকে বলেন, তাপমাত্রা কমায় জানুয়ারিতে মাছ ধরা পড়েছে কম। ইলিশ ও পোয়া কম আহরিত হয়েছে। তাপমাত্রা যেখানে কম থাকে, সেখান থেকে মাছ সরে অন্যত্র চলে যায়।

এই মৎস্য কর্মকর্তা জানান, গত জানুয়ারিতে ইলিশ ধরা পড়েছে প্রায় ২ হাজার ৯০০ টন। তবে গত বছরের জানুয়ারিতে ছিল ৩ হাজার ৬০০ টন। অর্থাৎ গত বছরের জানুয়ারির তুলনায় এ বছরের জানুয়ারিতে প্রায় ৭০০ টন কম ইলিশ ধরা পড়েছে।

এ ব্যাপারে বরিশাল বিভাগীয় মৎস্য অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক নৃপেন্দ্র নাথ বিশ্বাস সংবাদ সারাবেলাকে বলেন, নদীতে জাটকা বেশি। এটি রক্ষা করতে পারলেই ইলিশ বাড়বে। বিগত কয়েক বছরে জানুয়ারিতে নতুন একটি সিজন শুরু হয়েছিল ইলিশের। কিন্তু এবার কেন কম তা খতিয়ে দেখতে হবে। অত্যধিক শীতের কারণেও ইলিশ কমতে পারে।


Sangbad Sarabela

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক ও প্রকাশক: কাজী আবু জাফর

যোগাযোগ: । 01894-944220 । [email protected], বিজ্ঞাপন: 01894-944204

ঠিকানা: বার্তা ও বাণিজ্যিক যোগাযোগ : বাড়ি নম্বর-২৩৪, খাইরুন্নেসা ম্যানশন, কাঁটাবন, নিউ এলিফ্যান্ট রোড, ঢাকা-১২০৫।

আমাদের সঙ্গে থাকুন

© 2024 Sangbad Sarabela All Rights Reserved.